গেমস জোন [পর্ব-২১] :: (প্রিভিউ) Remember Me (May, 2013)

টিউন বিভাগ গেমস
প্রকাশিত

গেমস জোন

হ্যালো গেম ভক্তরা, কেমন আছো? নিয়ে এলাম প্রতিদিনের মত আজও গেমস জোনের প্রিভিউ এর নতুন পর্ব নিয়ে। আজকের পর্বে থাকছে একটি থার্ড পারসন সাইন্স ফিকশন একশন-এ্যাডভেঞ্চার গেম। আজকের গেম রিমেম্বারমি

Wall রিমেম্বার মি একটি আপকামিং ভিডিও গেম, নির্মাণ করেছে ডোন্টনোড এন্টারটেইমেন্ট এবং প্রকাশ করবে ক্যাপকম। গেমটি মে ২০১৩ সালে মাইক্রোসফট উইন্ডোজ, প্লে-স্টেশন ৩ এবং এক্সবক্স ৩৬০ গেমস কনসোলের জন্য মুক্তি পাবে। রিমেম্বার মি নামে একটি ইংলিশ ছবি রয়েছে তবে গেমটির সাথে ছবির কোনো মিল বা সম্পর্ক নেই।

রিমেম্বার মি

Cover

নির্মাতা:

ডোন্টনোড এন্টারটেইমেন্ট

প্রকাশকরবে:

ক্যাপকম

খেলাযাবে:

মাইক্রোসফট উইন্ডোজ ,

প্লে-স্টেশন ৩ এভং

এক্সবক্স ৩৫০ গেমস কনসোলে।

মুক্তিপাবে:

মে ২০১৩

ধরণ:

ইন্টারএকটিভ সিনেমা,

থার্ড পারসন,

একশন-এ্যাডভেঞ্চার,

সাইন্স ফিকশন

খেলারধরণ:

সিঙ্গেল প্লেয়ার

পাওয়াযাবে:

অপটিক্যাল ডিস্কে

ট্রেইলারভিডিও:

http://www.youtube.com/watch?v=1uL84jWdCps

http://www.youtube.com/watch?v=VAjfHqbwMaM

http://www.youtube.com/watch?v=BtLBRiTJnpI

http://www.youtube.com/watch?v=5Dvf9UF8nqk

http://www.youtube.com/watch?v=DaVc9nOoY9Y

http://www.youtube.com/watch?v=_QqI590COEc

সিস্টেমরিকোয়ারমেন্ট:

প্রকাশ করা হয় নি এখনো**

MMCV

গেমটির পটভূমি ২০৮৪ সালে নিও-প্যারিস শহরে। তথ্য-প্রযুক্তির তখন এতটাই উন্নয়ন হয়েছে যে, তখন মানুষের মসি-স্ক এর তথ্য অর্থ্যাৎ স্মৃতিতে ডিজিটাল করা হয়েছে। মানুষের মসি-স্কের স্মৃতি কেনা-বেচা করা যায় তখন!! গেমটিতে তোমাকে নিলিন এর ভূমিকায় খেলতে হবে। যার মেমোরি তার সাবেক বস এর দ্বারা মুছে ফেলা হয়েছে। গেমটিতে তোমাকে খুঁজে পেতে হবে তোমার মানে নিলিনের হারিয়ে যাওয়া মেমোরিকে। গেমটির শুরুতে তোমাকে মানে নিলিনকে পাওয়া যাবে ব্রাস্টট্রিল প্রিজন এ।

২১ শতকে মানুষের স্মৃতিকে কেনা বেচার পণ্য হিসেবে বানিয়ে ফেলার ফলে “পার্সোনাল” বলে কোনো কথা থাকবে না। তবুও তথ্য-প্রযুক্তির এই ধরণকে মানুষ খুউব ভালভাবে নিয়েছে।

নিলিন। সে সাবেক মেমোরি হান্টার হিসেবে মিলিটারী এলাইট দলের সদস্য ছিল। নিলিনের ক্ষমতা রয়েছে যেকোনো মানুষের স্মৃতির ভেতর ঢুকে তা চুরি করে নিয়ে আসা অথবা নষ্ট করে দেওয়া। এই রকম ক্ষমতা মানুষের জন্য ক্ষতিকর হতে পারে ভেবে সরকার তাকে গ্রেফতার করে এবং তার মেমোরির সবকিছু ডিলেট করে দেয়। গেমটি শুরু হবে নিলিন যখন জেল থেকে ছাড়া পেল তখন। জেল থেকে বেরিয়ে নিলিন তার পরিচয় এবং হারিয়ে যাওয়া স্মৃতি খূঁজে বের করবে। সেখানে তোমার মানে নিলিনের সাথে থাকবে তার শেষ এবং একমাত্র বন্ধু।

ফিচারসমূহ:

* অসাধারণ, সুন্দর ভবিষ্যৎ এর শহর, নিও-প্যারিসে ২০৮৪ সালে গেমটি সেট করা হয়েছে। যেখানে মেমোরি কনট্রোল সিস্টেম মানুষের উপর রাজত্ব করেছে।

* এলাইট মেমোরি হান্টার নিলিন থাকবে তোমার ক্যারেক্টার হিসেবে। মারপিট, কম্বো ব্যবহার করে শত্রুর মাথার স্মৃতি তোমার মাথায় নিয়ে এসে মিশন পূরণ করতে হবে। প্রতি মিশন শেষে নিলিন তার হারিয়ে যাওয়া স্মৃতি ফিরে পেতে থাকবে।

* ২০৮৪ সালে ডিজিটাল পৃথিবীর মজা নাও মেমোরি রিমিক্স প্রযুক্তি দিয়ে। একজনের মেমোরি আরেকজনের সাথে মিক্স করে তৈরি করে নাও তোমার নিজের মেমোরি। হা হা হা!!

* শত্রুর মোকাবেলা করে যাও কমবাট এবং এক্সপ্লোরেশন এর মাধ্যমে। নিলিনের মার্শাল আর্ট ব্যবহার কর।

* গেমটিতে রয়েছে অনেক মাল্টিপল কমবাট । যার সাহায্যে অনেক সুন্দর সুন্দর মার্শাল আর্ট তৈরি করতে পারো। বোরিং মার্শাল আর্ট নয়, ডিজিটাল এবং এডভান্স মার্শাল আর্ট।

SC1

SC2

SC3

SC4

SC5

সর্বশেষে বলতে চাই, গেমটিতে কম্বো ল্যাব নামক একটি মেনু আছে। যেখানে নিলিনের জন্য তুমি নিজে কম্বোর তৈরি করতে পারো। ক্যাপকম এর খবর অনুযায়ী, তুমি কম্বোর ল্যাব এর সাহায্যে ৫০ হাজারের বেশি কাস্টম কম্বো তৈরি করতে পারবে। দারুণ না!!

http://www.facebook.com/games.zone.bd

207523_561111420581098_1615372633_n

Level 10

আমি ফাহাদ হোসেন। Supreme Top Tuner, Techtunes, Dhaka। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 9 বছর 3 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 662 টি টিউন ও 429 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 118 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।

যার কেউ নাই তার কম্পিউটার আছে!


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

awesome preview …..my hands are itching to play ….

ধন্যবাদ সুন্দর রিভিউয়ের জন্য। কিছু মনে করবেন না আমি আসলে গেম তেমন ভালো বুঝিনা। থার্ড পারসন শুটিং গেমস্ বা ফাস্ট পারসন শুটিং গেম বলতে আসলে কি বুঝায়। সেকেন্ড পারসন শুটিং গেমও কি তাহলে আছে?

    @মোহাম্মদ খালিদ হোসাইন:

    সহজ ভাবে বলতে গেলে যে গেম গুলোতে প্লেয়ার(ফুল বডি) কে দেখা যায় এবং তাকে নিয়ে কাজ করতে হয়, যেমন হিটম্যান, স্প্লিনটার সেল, এগুলো হল থার্ডপার্সন শুটিং গেম, আর যে গেম গুলোতে প্লেয়ারের জাস্ট বন্দুক/ অস্ত্র টা শুধু দেখা যায় সেগুলো হল ফাস্টপার্সন শুটার গেম যেমন কল অফ ডিউটি/ ব্যাটলফিল্ড/ ক্রাইসিস ইত্যাদি। (ব্যাখ্যাটা ভালো হলো না)

    বিস্তারিত,
    http://en.wikipedia.org/wiki/Third-person_shooter (থার্ডপার্সন)

    http://en.wikipedia.org/wiki/First-person_shooter (ফাস্টপার্সন)

    সেকেন্ড পারসন শুটিং গেম বলতে কিছু নেই।

      সেকেন্ড পারসন শুটিং ধরণটি শুধুমাত্র রেসিডেন্ট ইভিল ৪ গেমটিতে রয়েছে। :p

চমৎকার প্রিভিউ!!! ব্যাটলফিল্ড ৪ এর প্রিভিউ নিয়ে কিছু বলেন।

Level 0

গেমওয়ালা vy ar baam ki Sobuj vy????

and nice post.