ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

গুগল ক্রোম আর ভাল লাগে না? গুগল ক্রোম ব্যবহার করতে করতে বিরক্ত? তাহলে আর দেরি না করে দেখে নিন গুগল ক্রোমের এর ৭টি বিকল্প ব্রাউজার

যেকোনো কম্পিউটারে ইন্টারনেট ব্যবহারের জন্য সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ সফটওয়্যার হল ব্রাউজার। কারণ ব্রাউজার দিয়েই আমরা ইন্টারনেট ব্রাউজ করতে পারি। সারা বিশ্বের সাথে কানেক্টেড থাকতে পারি। আমরা যেসব ব্রাউজার ব্যবহার করি তার প্রায় সবই তিনটি ব্রাউজারের উপর ভিত্তি করে বানানো।

ADs by Techtunes ADs

এছাড়াও আরো কিছু ছোট ছোট ব্রাউজার আছে। তবে বেশিরভাগ ব্রাউজার হয় গুগল ক্রোম বা ফায়ারফক্স এর সোর্স কোড দিয়ে বানানো। কারণ এই এই দুইটি সফটওয়্যারের সোর্স কোড ফ্রী। তাই যে কেউ চাইলেই ব্যবহার করতে পারে। এবং এগুলোর নিয়মিত আপডেট বের হত। গুগল ক্রোম বা মজিলা ফায়ারফক্স এর সিকিউরিটি অন্যান্য ব্রাউজার থেকে বেশি।

আমরা প্রতিদিন গুগল এর অনেক জিনিস ব্যবহার করি। তার মধ্যে যেমন গুগল সার্চ ইঞ্জিন আছে। তেমনি যারা পিসিতে ইন্টারনেট ব্যবহার করি তারা প্রায় সবাই গুগল না হলে মজিলা ফায়ারফক্স ব্যবহার করি। আমি নিজে গুগল ক্রোম ব্যবহার করি। মজিলা ফায়ারফক্স অবশ্যই ভাল।

কিন্তু আমার কাছে গুগল ক্রোম ভাল মনে হয় এবং কিছুটা বেশি ফাস্ট মনে হয়। তবে গুগল ক্রোমের একটি সমস্যা হল আপনি যদি গুগল ক্রোমে অনেক বেশি ট্যাব ওপেন করে রাখেন তাহলে আপনার কম্পিউটার স্লো হয়ে যাবে। কারণ গুগল ক্রোম ঠিকভাবে চলার জন্য অনেক বেশি র‍্যামের প্রয়োজন হয়।

গুগল ক্রোম যেমন একটি ব্রাউজার তেমনি এই ব্রাউজার এর মাধ্যমে আপনি যেকোনো পিডিএফ পরতে পারবেন। এছাড়াও গুগল ক্রোমে অনেক ধরনের ফিচার আছে যেগুলো সম্পর্কে অনেকেই জানেন।

তারপরেই যারা গুগল ক্রোম এর সোর্স কোড ব্যবহার করে নিজের একটি ব্রাউজার বানাতে চান তারা ইচ্ছে করলে নতুন অনেক ফিচার অ্যাড করতে পারেন। আর গুগল ক্রোমে ব্যবহারের জন্য আছে বিশাল একটি এক্সটেনশনের কালেকশন।

আজকে আমি আপনাদের সাথে ৭টি নতুন ব্রাউজারের সাথে পরিচয় করিয়ে দিব। যারা কাজে এবং দেখতে গুগল ক্রোমের মত। এখন অনেকেই ভাবতে পারেন গুগল ক্রোম তো আছেই, তাহলে আমার আবার কেন একি রকম আরেকটি ব্রাউজার ব্যবহার করতে হবে।

তাদের জন্য বলি গুগল ক্রোম অনেক ফাস্ট এবং সিকিউর একটি ব্রাউজার তবে অনেক ধরনের ফিচার আছে যেগুলো গুগল ক্রোম এর অফিশিয়াল ব্রাউজারে পাওয়া যায় না। তাই অনেকেই নিজেদের এসব ফিচার পাওয়ার জন্য গুগল ক্রোমের সোর্স কোড ব্যবহার করে বানানো ব্রাউজার ব্যবহার করেন। আবার অনেকগুলোর ইন্টারফেস গুগল ক্রোম এর মত। চলুন দেখে আশা যাক এমন ৭টি ব্রাউজার। আশা করি আপনাদের এগুলো ভাল লাগবে।

ব্রাউজারটি ডাউনলোড করতে

ভিভালদি(Viavaldi)

যারা অপেরা চালান তাদের ভিভালদি ব্রাউজারটি অনেক ভাল লাগবে আশা করি। কারণ এই ব্রাউজারটি যিনি তৈরি করেছেন তিনি ছিলেন অপেরা ব্রাউজার এর ফরমার ফাউন্ডার। অপেরা ব্রাউজারে আগে অনেক ফিচার ছিল যেগুলো এখন আর নেই। সেই ফিচার গুলো এই ব্রাউজারে দিয়ে দেয়া হয়েছে।

ADs by Techtunes ADs

তবে ভিভালদি ব্রাউজারটির একটি অন্যতম ফিচার হলো এই ব্রাউজারটি ওয়েবসাইট এর কালার অনুযায়ী ব্রাউজারের কালার পরিবর্তন করে নেয়। এবং এই ব্রাউজারে অনেকগুলো থেম আছে যেখান থেকে আপনি পছন্দ মত থেম সিলেক্ট করতে পারবেন।

এছাড়াও এই ব্রাউজারে আছে রিডিং ভিউ মোড, জার মাধ্যমে আপনি যখন কিছু পরবেন তখন কিছুটা হলেই বাড়তি সুবিধা পাবেন। আর সাধারণ গুগল ক্রোমের অনেক ফিচার তো আছেই।
ব্রাউজারটি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।

ইয়ানডেক্স ব্রাউজার?(Yandex Browser)

ইয়ানডেক্স হলো রাশিয়ার সবচেয়ে বড় সার্চ ইঞ্জিন। তাদের তৈরি এই ব্রাউজারটি ২০১২ থেকেই ইন্টারনেটে আছে। এবং মোটামুটি অনেক জনপ্রিয়। কারণ ইয়ানডেক্স ব্রাউজারে কিছু ফিচার আছে যেগুলো অন্য ব্রাউজারে সাধারণত নেই। ইয়ানডেক্স ব্রাউজারটির ইন্টারফেস কিছুটা গুগল ক্রোম এর মত হলেই আপনি সহজেই ব্যবহার করতে পারবেন।

এবং এই ব্রাউজারটি আপনি উইন্ডোজ, আন্ড্রয়েড, লিনাক্স কিংবা ম্যাক অপারেটিং সিস্টেমে ইনস্টল করতে পারবেন। ইয়ানডেক্স ব্রাউজারের একটি ফিচার আছে জার নাম “DNSCrypt”, এই ফিচারটি যেকোনো ডি.এন.এস সার্ভার থেকে ডাটা এনক্রিপ্ট করে আদান প্রদান করে। এবং এই ব্রাউজারটি অপেরা ব্রাউজারের মত আপনার ওয়েবসাইট কে কম্প্রেস করে ডাটা সেভ করতে পারে। ব্রাউজারটি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।

সেন্ট ব্রাউজার(Cent Browser)

সেন্ট ব্রাউজার পুরোটাই গুগল ক্রোমের উপর ভিত্তি করে বানানো। যারা গুগল ক্রোম এর মত সিম্পল ইন্টারফেস চান আবার অনেক বেশি ফিচার চান তাদের জন্য এই ব্রাউজারটি সেরাদের মধ্যে সেরা। সেন্ট ব্রাউজারটিতে হাজার হাজার ফিচার আছে যেগুলো গুগল ক্রোম নেই।

এছাড়াও গুগল ক্রোমের উপর ভিত্তি করে তৈরি করা হলেই গুগল ক্রোম এর অঙ্কে কিছুই এখানে পরিবর্তন করা হয়েছে। যেমন ট্যাব পেজ, বুকমার্ক লেআউট, টুলবার ইত্যাদিতে পরিবর্তন আনা হয়েছে। এবং গুগল ক্রোমের থেকে অনেক কম র‍্যাম এবং প্রসেসিং পাওয়ার ব্যবহার করে এই ব্রাউজারটি গুগল ক্রোমের মত কাজ করতে পারে।

সেন্ট ব্রাউজারটি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।

ADs by Techtunes ADs

অপেরা(Opera)

যারা স্মার্টফোনে ইন্টারনেট ব্রাউজ করেন তাদের কাছে অপেরা অনেক জনপ্রিয় একটি ব্রাউজার। এবং এই ব্রাউজারটি অনেক আগে থেকে ইন্টারনেটের রাজ্যে রাজত্ব করছে। আগে যদিও অপেরার অন্য একটি ইঞ্জিন ব্যবহার করত, কিন্তু এখন অপেরা গুগল ক্রোম ইঞ্জিন ব্যবহার করে।

এবং দিন দিন অপেরা আমাদের নতুন নতুন ফিচারের সাথে পরিচয় করিয়ে দিচ্ছে। আমাদের দেখা অপেরার বেস্ট ফিচার হলো এর সাথে দেয়া ভিপিএন। যেগুলো অপেরার নিজেদের ভিপিএন। এছাড়াও অপেরাতে আছে অনেক শক্তিশালী অ্যাড ব্লকার।

আপনি যদি অ্যাড ব্লকার ব্যবহার করেন তবে আপনি যেই ওয়েবসাইটগুলতে নিয়মিত ভিজিট করেন সেগুলোকে হোয়াইট লিস্টেড করে রাখুন। কারণ বেশিরভাগ ওয়েবসাইটই অ্যাড থেকে নিজেদের ওয়েবসাইট এর খরচ চালিয়ে থাকে। অপেরা ব্রাউজারটি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।

স্লিম জেট(Slimjet)

ইন্টারফেস ততোটা সুন্দর না হলেই আমার দেখা সবচেয়ে বেশি ফিচার সমৃদ্ধ ব্রাউজার হল স্লিমজেট। এই ব্রাউজারটী উইন্ডোজ ৭, ৮, ১০ এ খুব ভাল ভাবে চলে। তবে উইন্ডোজ এক্সপি এর জন্য এই ব্রাউজারের বিশেষ ভার্সন  আছে। এছাড়াও উইন্ডোজ ভিস্তাতেও আপনি এই ব্রাউজারটি ইনস্টল করতে পারবেন।

এবং এই ব্রাউজারেও আছে প্রক্সি ব্যবহারের সুবিধা। অপেরা ব্রাউজারের মত স্লিম জেট ব্রাউজারের নিজেদের প্রক্সি সার্ভার আছে। তাই যাদের প্রক্সি সার্ভার এর প্রয়োজন  তারা ব্যবহার করে দেখতে পারেন। ব্রাউজারটি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।

ইউসি ব্রাউজার(UC Browser)

আশা করি ইউসি ব্রাউজার সম্পর্কে আপনাদের আর বেশি কিছু বলতে হবে না। কারণ যারা স্মার্টফোন বিশেষ করে আন্ড্রয়েড ব্যবহার করেন তারা ইউসি ব্রাউজার ব্যবহার করবেন এটাই স্বাভাবিক। অনেকের হয়ত ভাল নাও লাগতে পারে।

ইউসি ব্রাউজারের উইন্ডোজ ভার্সন দেখতে যেমন স্মার্ট কাজেও স্মার্ট। ইউসি ব্রাউজারের সবচেয়ে কাজের একটি ফিচার হল আপনি ইচ্ছে করলে কম্পিউটারের ইউসি ব্রাউজার দিয়ে হটস্পট তৈরি করে আপনার ফোন ইন্টারনেট শেয়ার করতে পারবেন।

ইউসি ব্রাউজার ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।

ADs by Techtunes ADs

Sleipnir

ব্রাউজার নাম দেখেই অনেকই বুঝতে পারছেন ব্রাউজারটি নির্ঘাত জাপানে তৈরি। কিন্তু চিন্তার কোন কারণ নেই কারণ এই ব্রাউজারটি অনেকগুলো ল্যাঙ্গুয়েজ সাপোর্ট করে। এই ব্রাউজারের দুইটি ভার্সন আছে।

একটি দেখতে একটু আলাদা আরেটি পুরো গুগল ক্রোম এর মত। গুগল ক্রোম এর মত দেখতে ব্রাউজারের ভার্সনটির নাম Sleipnir 4, এই ব্রাউজারে আপনি ট্যাব গ্রুপ আকারে সাজাতে পারবেন। এছাড়াও আরো না ফিচার আছে এই ব্রাউজারটিতে।

ব্রাউজারটি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করবেন।

আজ এ পর্যন্তই। সবাই আশা করি ভাল আছেন। এবং এই টিউনটি বুঝতে যদি কোন সমস্যা হয় তবে অবশ্যই টিউমেন্ট করে জানাবেন।

ADs by Techtunes ADs
Level 0

আমি আশরাফুল ফিরোজ। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 4 বছর 11 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 77 টি টিউন ও 36 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 3 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস

প্রধানতঃ Opera ব্যবহার করি।