ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

রোম সাম্রাজ্যের উত্থান ২য় পর্ব: যমজ ভাইদের গল্প ও রোম প্রতিষ্ঠার মিথলজি

আসসালামু আলাইকুম বন্ধুরা। আসা করছি ভালো আছে। গত টিউনে আমরা রোম সাম্রাজ্যের উত্থান (১ম পর্ব): প্রাচীন ইতালি নিয়ে আলোচনা করেছি যারা প্রথম পর্ব মিস করেছেন তাদের জন্য নিচে প্রথম পর্বের লিংকটি দেওয়া থাকবে।

ADs by Techtunes ADs

প্রথম পর্বের ভিডিও ঃঃ

 

আজ আমি আপনাদের সাথে রোম সাম্রাজ্যের উত্থান (২য় পর্ব): যমজ ভাইদের গল্প ও রোম প্রতিষ্ঠার মিথলজির বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করবো। তাহলে আর কথা না বাড়িয়ে মূল ঘটনাই ফিরে আসি ঃ

আগের পর্বে রোম প্রতিষ্ঠার প্রারম্ভে ইতালির তৎকালীন ভৌগলিক ও সামাজিক প্রেক্ষাপট তুলে ধরা হয়েছিল, যা প্রত্নতাত্ত্বিক নিদর্শন ও গবেষণার মাধ্যমে প্রমাণিত। এই পর্বের আলোচনায় আমরা প্রমাণিত তথ্য-উপাত্ত থেকে দূরে সরে মিথোলজির দুনিয়ায় প্রবেশ করবো। রোমানরা কীভাবে তাদের উৎপত্তি বর্ণনা করত তা জানার জন্যই এর অবতারণা। তাদের দৃষ্টিতে রোম কখন, কীভাবে স্থাপিত হয় সেখান থেকে তাদের সামাজিক ও ধর্মীয় বিশ্বাসের পরিচয় পাওয়া যায়।

আগেই বলা হয়েছিল যে, রোম কোনো একক জাতিগোষ্ঠীর আবাস ছিল না, বরং ভিন্ন ভিন্ন জাতি মিলে নতুনভাবে তৈরি করেছিল রোমান সভ্যতা। এখনকার সময় আমরা জানি, প্রায় সব বড় বড় সভ্যতাই এভাবে সৃষ্টি হয়েছে। কিন্তু ওই সময়ে বড় সভ্যতাগুলো, যেমন- গ্রীক সভ্যতা, তাদের একক জাতি হিসেবে অভ্যুদিয়ের কাহিনী জাহির করত এবং তাদের দেবতাদের নানাভাবে এই গল্পে জড়িত করত। এর মাধ্যমে তারা বোঝাতে চাইত যে, জাতি হিসেবে তারা দেবতাদের আশীর্বাদধন্য এবং তাদের আভিজাত্য জন্মসূত্রে প্রাপ্ত। রোমানরা প্রথমদিকে তাদের মিশ্র জাতসত্ত্বার জন্য তাই অনেক বিদ্রুপ হজম করেছিল। এ কারণে রোম যখন নগণ্য একটি শহর থেকে শক্তিশালী একটি রাজ্যে পরিবর্তিত হতে শুরু করে তখন এর অধিবাসীরাও কোনো সম্ভ্রান্ত জাতি বা রাজবংশের সাথে নিজেদের যোগসূত্র স্থাপন করতে হন্যে হয়ে ওঠে, যার দ্বারা তারা তাদের মর্যাদা ও ক্ষমতা বৃদ্ধি করতে পারবে।

 

 

ভিডিও দেখুন ঃঃ

ADs by Techtunes ADs

 

এর সূত্র ধরে তৎকালীন অনেক ঐতিহাসিক, যেমন- লিভি, মিথোলজিকাল কাহিনীর অবতারণা করেন। তারা ছাড়াও সমসাময়িক গ্রীক ঐতিহাসিকরাও রোম প্রতিষ্ঠার মিথ বর্ণনা করেছিলেন। এরকম প্রায় পঁচিশটির মতো মিথ রয়েছে। তবে রোমানরা রেমুস ও রোমুলাস নামে দুই যমজ ভাইয়ের হাত ধরে রোম নগর প্রতিষ্ঠা হয় বলে বিশ্বাস করত, এবং তাদের ধর্মীয় আচারেও সেটার প্রতিফলন ঘটাত। অনেক আধুনিক ঐতিহাসিকের মতে, রোমের অধিবাসীরা শহরের নাম থেকে এর প্রতিষ্ঠাতা এবং প্রথম রাজার নাম দেয় রোমুলাস, যা ল্যাটিনে রোম উচ্চারণের খুব কাছাকাছি। নিকটবর্তী রেমারিয়া নামে আরেকটি ছোট শহর ছিল, যার প্রথম রাজা ছিলেন রেমুস। কিছু আধুনিক ঐতিহাসিক বিশ্বাস করেন- রোমানরা এদেরকেই দুই যমজ ভাই হিসেবে দাবি করে।

রেমুস ও রোমুলাস ঘটনাই ছিল রোম প্রতিষ্ঠার সবচেয়ে প্রচলিত ও জনপ্রিয় কাহিনী। লিভি ও অন্যান্য রোমান ইতিহাসবিদ আরও একধাপ এগিয়ে রেমুস ও রোমুলাসকে ট্রোজান রাজপুরুষ ইনিয়াসের বংশধর বলে দাবি করতে থাকেন, যার মধ্যে সুপ্রাচীন ও মর্যাদাবান ট্রোজান জাতির সাথে রোম তাদের যোগসূত্র স্থাপন করতে সমর্থ হয়। ইনিয়াসের দ্বারা রোম প্রতিষ্ঠা হয় বলেও কেউ কেউ মত দেন, তবে রোমানরা ইনিয়াসকে প্রতিষ্ঠাতা নয় বরং তাদের পূর্বপুরুষ বলেই মনে করত। সেই কাহিনী না বললে রেমুস ও রোমুলাসের গল্প অসম্পূর্ণ থেকে যাবে।

 

আর সম্পূর্ণ কাহিনী জনাতে ভিডিওটি দেখুন ঃঃ

 

আশা করছি আজকের এই পর্বটি আপনাদের ভালো লেগেছে। যদি আপনাদের ভিডিওটি ভালো লাগে তাহলে অবশ্য টিউমেন্টে জানাতে ভুলবেনা এবং বিনোদন জগৎ এর সকল তথ্য জানতে আমাদের youtube channel visit করুন ঃঃ

https://www.youtube.com/channel/UCI7pL4JCDugAxULDBfFUS3w

ADs by Techtunes ADs

ধন্যবাদ সকলে 😊

 

আরো ভিডিও ঃঃ

 

আরো ভিডিঃ

 

More video -

ADs by Techtunes ADs

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

ADs by Techtunes ADs

ADs by Techtunes ADs
Level 0

আমি ইয়াসিন আরাফাত। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 2 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 2 টি টিউন ও 0 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 0 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস