ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

ভিজিটর হারাতে না চাইলে ব্লগ তৈরির আগে যে বিষয়গুলো নিয়ে অবশ্যই ভাবতে হবে

আসসালামু আলাইকুম। নতুন বছরের শুভেচ্ছা। ২০১৭ আপনাদের জীবনে কল্যাণ বয়ে নিয়ে আসুক। আজ খুবই প্রয়োজেনীয় বিষয়গুলো নিয়ে আলোচনা করব যা ব্লগ সাইট তৈরি করার আগেই আপনাকে ভাবতে হবে। তা হলে ভিজিটর আপনার ওয়েবসাইটে স্থায়ী হবে না। কে চায় তার ওয়েবসাইটে ভিজিটর ক্লিক করেই বিরক্ত হয়ে চলে যাক? কেউই নিশ্চয় চায় না। সবাই চায় ভিজিটর যেন তার ব্লগে স্থায়ী হয়। কিন্তু আমাদের কিছু ভুলে আমরা ভিজিটর হারাই।

ADs by Techtunes ADs

একটি সুন্দর ব্লগ লোকেরা ব্যবহার করে ভোগ করে কেবল তার কন্টেন্টর জন্যই নয়। বরং ডিজাইনিং ও কন্টেন্ট স্ট্যাইল এবং সঠিকভাবে এড ও কন্টেন্ট সেটআপ না করে রাখলে ভিজিটর আপনার ব্লগে স্থায়ী হবে না। এমনই কিছু টিপস আজকের টিউনে-

অনলাইনে টাকা আয় করা, বিশ্বের সঙ্গে আপনার চিন্তা শেয়ার করা বা সৃজনশীল কোন কিছু প্রতিষ্ঠা করতে ব্লগিং হতে পারে একটি আদর্শ মাধ্যম।

তবে সফল ব্লগিং মাত্র কয়েক অনুচ্ছেদ লিখে তা প্রকাশ করে দিলেই হবে না। যখন একটি ব্লগ শুরু করার কথা চিন্তা করবেন তখনই তার ডিজাইন সম্পর্কে চিন্তা করতে হবে। কন্টেন্ট স্ট্যাইল সম্পর্কে ধারনা নিতে হবে।

ডিজাইন কেমন হবে?
আপনারা হয়ত খেয়াল করেন নি, ২০১৬ সালে জনপ্রিয় ডিজাইন প্রবণতা minimalism হয়েছে। জনাকীর্ণ লেআউট দিয়ে ব্লগ তৈরি করে সফল হওয়ার দিন চলে গেছে। এখন ইন্টারনেট ব্যবহারকারীরা ওয়েবসাইট এবং ব্লগ যে শুধুমাত্র তাদের প্রয়োজনীয় তথ্য উদ্ধার খুঁজতে ভিজিট করে তাও নয়। ভিজিটরদের জোর করে কোন এড বা বিজ্ঞাপন দেখানোও উচিত মনে করি না। একটি আকর্ষণীয় এবং সুসঙ্গত ওয়েবসাইটে ব্যবহারকারী তার প্রয়োজনীয় তথ্য খুজে না পেলেও সে আপনার দেয়া তথ্যগুলো আরেকবার চোখ বুলাবে শুধুমাত্র ওয়েবসাইটের আকর্ষনীয় ডিজাইনের কারনে। হয়ত তথ্যগুলো সে আগে থেকেই জানে, তবুও নতুন কিছু আছে কি না জানার জন্য আপনার ব্লগ ঘুরে দেখবে যদি আপনার ব্লগটি ইউজার ফ্রেন্ডলী হয়।

কি ধরনের কন্টেন্ট ব্যবহার করবেন এবং আপনার ব্লগের ডিজাইন কেমন হওয়া উচিত তা নির্ভর করবে আপনার ব্লগের বিষয়বস্তুর উপর। আমি ওবায়দুল হক একজন ডিজাইনার ও ডেভলাপর হিসেবে মনে করি - "শুধুমাত্র তথ্য ফোকাস করা নয়, কন্টেন্টের বিষয়বস্তু এবং আপনার ওয়েবসাইটের ডিজাইনই ভিজিটরদের ঠিক করবে সে আপনার ওয়েবসাইটের থাকবে না কি চলে যাবে" পরিশেষে, এড স্পেস এবং কন্টেন্ট স্পেস এর মধ্যে পার্থক্য রাখুন। দৃষ্টিনন্দন ফন্ট স্টাইল এবং লেআউট নির্বাচন করুন।

টেকটিউনসে টিউন করতে যে সকল শর্ত পূরণ করতে হয় ইতিমধ্যে সবই পূর্ণ হয়ে গেছে। আমি যে বিষয়ে আলোচনা করছি তাও একটি প্রথমিক ধারনা দিয়েছি। তাই চাইলেই আমি টিউনটি এখানে শেষ করে দিতে পারতাম। কিন্তু তা হলে আমার টিউন রিডাররা বিরক্ত হবে। ব্লগিং করতেও তেমনী শুধুমাত্র আরটিকোল ৩০০-৫০০ শব্দের হলেই শেষ করে না দিয়ে কন্টেন্ট সুন্দর করতে তথ্যগুলো সুন্দরভাবে উপন্থাপন এবং গুছিয়ে লিখতে হবে।

আকর্ষনীয় টেমপ্লেট নির্বাচন করা নিয়ে ভেবেছেন?
ইন্টারনেটে হাজার হাজার টেমপ্লেট আছে সেখান থেকে আপনার ব্লগের ধরন অনুযায়ী টেমপ্লেট নির্বাচন করতে হবে পাশাপাশি দেখতে হবে এই টেমপ্লেটটিতে ইমেজ, কন্টেন্ট, সাইটবার, হেডার, ফোডার, সোশিয়াল কন্টেন্ট, এড ইত্যাদি কিভাবে দেখাচ্ছে।
ব্লগিং করতে ডায়নামিক ডিজাইনের ওয়েবসাইট ডেভোলাপ করাই উত্তম। ফলে সহজে কন্টেন্ট আপডেট করতে পারবেন। কোন কিছু পাবলিশ করার পর যদি মনে করেন সেটা সুন্দরভাবে শো করছে না তবে সহজে মুছে দিতে পারবেন। কোন ভুল ধরা পড়ার সাথে সাথেই আপডেট করতে পারবেন। তা না হলে, আপডেট করার কাজগুলো যদি জটিল হয় তবে পরবর্তীতে করবেন ভাবলেও হয়ত ভুলে যেতে পারেন। ডায়নামিক সাইট হলে আপডেট ও এডিট করাতে পারবেন সহজে। তাই একটি ডায়নামিক টেমপ্লেটই নির্বাচন করুন।

সাইডবার কেমন হওয়া উচিত?
ব্লগ ডিজাইনেও না কি ব্লগারের দৃষ্টিভঙ্গি ফুটে উঠে। ওয়েবসাইটের (সাধারণত ডান দিকে) যে চটচটে উপাদানগুলি থাকে সেটাকে সাইটবার বলা হয়। দেখতে ছোট অংশ হলেও সামগ্রিক ডিজাইন এবং বিন্যাস উপর এর অসাধারণ প্রভাব রয়েছে। অপ্রয়োজনীয় উপাদানের সঙ্গে এটি ঠাসাঠাসি করা নয় বরং - ব্লগারের একটি সংক্ষিপ্ত বায়ো, পুরাতন টিউনের লিঙ্ক, ক্যাটাগরী ইত্যাদি দিয়ে সুন্দরভাবে সাজাতে পারেন।

অপ্ট-ইন ফরম যুক্ত করা নিয়ে ভেবেছেন?
ওয়েবসাইটে ভিজিট করার সাথে সাথে যদি ভিজিটরদের অপট-ইন ফরমে সাইনআপ করতে বলা হয় তবে বিষয়টি কি সুন্দর দেখায়। অনেক ব্লগেই এমন করা হয়। এতে ভিজিটর বিরক্ত হয়ে চলে যায়। কেউ কেউ যদিও ইমেল আইডি সাবমিট করে তবে সেখানে ভুল ইমেলই বেশী দেয়া হয়। রিডার যদি মনে করে আপনার সাইটটি অপট ইন করে রাখা উচিত তবে সেই ফরম খুজে বের করবে। এবং সঠিক ইমেল দিয়েই তা পূরণ করবে। যেকেউ চাইবে ভিজিটরের তথ্য যেন সংগ্রহে থাকে, পরবর্তীতে ভিজিটর ফিরে পেতে এটা খুবই সহায়ক। তবে কাজটি করতে হবে খুবই সর্তকতার সাথে।

ADs by Techtunes ADs

ওয়েবসাইটের রঙ নিয়ে চিন্তা করুন?
টাইটেল কি রঙ্গের দিতে চান? কন্টেন্টের লিংক কালার কেমন হওয়া উচিত। ভিজিটর যে লিংকে ভিজিটর করেছে সেটা কিভাবে শো করবে? এসব নিয়ে চিন্তা করুন। এড কন্টেন্ট এর রং কেমন রাখলে সেটা সুন্দর এবং সাজানো দেখাবে সেটা ঠিক করুন। পরিপাটি যেকোন ব্লগেই ভিজিটরের আকর্ষন বাড়ে।

পরিশেষে বলব, জরাজির্ণ এবং অগুছালো কন্টেন্ট এর পরিবর্তে একটি আকর্ষনীয় ডিজাইনই ভিজিটরদের ধরে রাখতে সহয়াতা করতে পারে। বাংলাদেশী অনেক সাইটে ভিজিট করেই আমি চলে আসি যখন দেখি সাইটের ফন্টগুলো ছোট এবং পড়তে কষ্ট হবে। তথ্য খুজে পেতে সাইটের তো আর অভাব নেই। অনেকে সাইটে ক্লিক করেই ফিরে আসি যখন দেখি ক্লিক করার সাথে সাথেই বড় বড় এড শো করছে। কন্টেন্টর তুলনায় এডই বেশী। তাছাড়া শুধু শুধু রিলোড নিচ্ছে এমন সাইটে ভিজিটর স্থায়ী হয় না।

টিউনটি পড়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ।
আমাকে ফেইসবুকে পাবেন 

ADs by Techtunes ADs
Level 0

আমি ওবায়দুল হক। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 9 বছর 8 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 51 টি টিউন ও 109 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 2 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।

লিজেন্টদের কমিউনিটি টিটি তে আমার মতো সামান্য এক টিউনার আপনাদের সাথে থাকতে পেরে খুবই ভালো লাগছে। আমি খুবই ক্ষুদ্র একজন ওয়েব ডেভলাপার। যেকোন ইকমার্স ওয়েবসাইট ডেভলাপ করতে আমার সাথে যোগাযোগ করতে পারেন। পিএইচপি প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজে যেকোন ডায়নামিক ওয়েবসাইট ডেভলাপ করতে যোগাযোগ করুন। http://websoftltd.com Mobile: 01718023759 http://www.fb.com/obaydul.shipon


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস